" /> গুলশানে স্বামীর সাথে অভিমানে বোতল ভেঙ্গে পেটে ঢুকিয়ে আত্মহত্যা – নাগরিক দৃষ্টি টেলিভিশন
মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ০৪:১০ পূর্বাহ্ন

গুলশানে স্বামীর সাথে অভিমানে বোতল ভেঙ্গে পেটে ঢুকিয়ে আত্মহত্যা

72271 193

8 / 100

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর গুলশান নিকেতনে স্বামীর সাথে অভিমান করে বোতল ভেঙ্গে নিজের পেটে ঢুকিয়ে মাহিমা খানম মুলান নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন। শুক্রবার রাত নয়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। তাকে দ্রুত উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে তার মৃত্যু হয়।


আহত অবস্থায় গৃহবধূকে নিয়ে আসা তার স্বামী জুবায়ের হোসেন তিনি বলেন, আমাদের মে মাসে দুই তারিখে বিয়ে হয়। প্রায় ২ থেকে ৩ মাস ভালোই ছিলাম এরপর থেকে সে আমার সাথে অনেক দূর ব্যবহার করে আসছে। অনেক সহ্য করি, যেহেতু আমি প্রেম করে বিয়ে করেছি। পারিবারিকভাবে সবায় মেনে নিয়েছে। এরপরেও দুর্ব্যবহার থামেনি আমি অসহ্য হয়ে ২৬ ডিসেম্বর তাকে ডিভোর্স দেই। এরপর থেকে আমি বাহিরে থাকি আজ রাত নয়টার দিকে গুলশান নিকেতনের নম্বর সড়কের ১১০ নম্বর বাসা আমার অফিসে এসে আমার সাথে ঝগড়া শুরু করে। তর্ক বিতর্কের এক পর্যায়ে অফিসের ফ্রিজের বোতল ভেঙে তার পেটে ঢুকিয়ে দেয় তখন উপায় না পেয়ে গুলশান থেকে এম্বুলেন্স যোগে তাকে ঢাকা মেডিকেল নিয়ে আসার পর চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।


নিহত মাহিমা খানম মুলান মুন্সিগঞ্জ সদর থানার বিখাবি বাজারের মো. মোফাজ্জল হোসেনের মেয়ে। দুই বোনের মধ্যে মুলান সবার ছোট। মুলান রাজধানীর উত্তর বাড্ডা নাবিলা হাউজিং চতুর্থ তালার একটি ফ্লাটে পরিবারের সাথে থাকতেন।

ঢামেক পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক ) মোহাম্মদ বাচ্চু মিয়া বলেন, গুলশান নিকেতন এলাকা থেকে এক গৃহবধু নিজের পেটে বোতল ঢেকে আসার পর চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি গুলশান থানাকে অবগত করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমরা