" /> আট বছর পলাতক থাকার পরে অবশেষে র‌্যাবের জালে ধরা – নাগরিক দৃষ্টি টেলিভিশন
শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩, ০৯:৪৯ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদ
খালেদা, তারেককে নিয়ে সময় টিভির প্রতিবেদন সম্পর্কে যা বললেন ফখরুল বিদ্যুতের দাম প্রতি মাসেই সমন্বয় করা হবে : প্রতিমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রী বিশ্বব্যাপী উচ্চশিক্ষার সুযোগ তৈরি করে দিয়েছেন : নাছিম বিআইডব্লিউটিএ’র অনুমোদন ছাড়া কোনো সেতু নয় : নৌ প্রতিমন্ত্রী সিলেটে আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস- ২০২৩ উদযাপন সাংবাদিক আফতাব হত্যা : ৯ বছর ছদ্মবেশে ফাঁসির আসামি, অবশেষে গ্রেপ্তার বিদ্যার দেবী শ্রী শ্রী সরস্বতী পূজা সাংবাদিক আফতাব হত্যা : ৯ বছর ছদ্মবেশে ফাঁসির আসামি, অবশেষে গ্রেপ্তার বার বার আদালতে আনা নেয়ায় অসুস্থ হয়েছেন রিজভী : ইউট্যাব ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ গড়ার মূল হাতিয়ার হবে ডিজিটাল সংযোগ : প্রধানমন্ত্রী

আট বছর পলাতক থাকার পরে অবশেষে র‌্যাবের জালে ধরা

WhatsApp Image 2022 12 26 at 12.17.45

5 / 100

নিজস্ব প্রতিবেদক:
জঙ্গি বিরোধী কাজ-কর্ম এবং পুলিশকে আহত করার অভিযোগে দীর্ঘ আট বছর পলাতক ছিলেন তিনি। অবশেষে আট বছর পরে র‌্যাবের কাছে গ্রেপ্তার হয়েছে নাফিজ সালাম উদয়। গ্রেপ্তারকৃত উদয় নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিযবুত তাহরীর’র শীর্ষ নেতা। রবিবার বিকালে রাজধানীর কামরাঙ্গীরচর এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

সোমবার সকালে র‌্যাব-২ এর জ্যেষ্ঠ সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. ফজলুল হক ঢাকাটাইমসকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

র‌্যাবের ভাষ্যমতে, নাফিজ সালাম উদয় নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিজবুত তাহরীরর শীর্ষ জঙ্গি নেতা এবং দাওয়াতি ও অর্থ বিভাগের সক্রিয় সদস্য। তিনি তার পরিচয় গোপন রাখার জন্য দাঁড়ি কেটে তার লেবাস পরিবর্তন করেন আর কামরাঙ্গীরচরে ভাঙ্গারীর ব্যবসা শুরু করেন। তিনি বিভিন্ন ছদ্মবেশ ধারন করে বিগত আট বছর ধরে এলাকা ছেড়ে আত্মগোপনে থেকে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর নজর এড়িয়ে চলেন। আর জঙ্গি সংগঠনের কাজ-কর্ম চালিয়ে যান।

নাফিজ সালাম উদয়ের বিরুদ্ধে মোহাম্মদপুর ও আদাবর থানায় মোট তিনটি জঙ্গি মামলা রয়েছে আর মোহাম্মদপুর থানায় একটি পুলিশকে আহত করার অভিযোগে একটি মামলা রয়েছে। এছাড়া ডিএমপি ঢাকার আদাবর থানায় তার নামে একটি গ্রেপ্তারি পরোয়ানা রয়েছে।

র‌্যাবের ভাষ্য, গোপন সংবাদেও ভিত্তিতে র‌্যাব-২ এর জঙ্গি প্রতিরোধ সেলের একটি বিশেষ আভিযানিক দল রবিবার বিকাল সোয়া তিনটার দিকে রাজধানীর কামরাঙ্গীর চর এলাকায় একটি অভিযান চালায়। অভিযানে নাফিজ সালাম উদয়কে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার উদয়ের বরাত দিয়ে র‌্যাব জানায়, উদয় নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন “হিযবুত তাহরীর”শীর্ষ নেতা এবং দাওয়াতি ও অর্থ বিভাগের সক্রিয় সদস্য। তিনি এইচএসসি পাস করে ২০০১ সালে উচ্চ শিক্ষার জন্য অস্ট্রেলিয়া যান। সেখান থেকে তিনি কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজির উপর গ্র্যাজুয়েশন শেষ করে ২০০৮ সালে বাংলাদেশে ফিরে আসেন। বাংলাদেশে এসে তিনি ঢাকা বিশ^বিদ্যালয় থেকে ২০১০ সালে মাস্টার্স শেষ করেন। তিনি সন্ত্রাস বিরোধী ট্রাইব্যুনালে ইস্যুকৃত গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত পালাতক আসামি। উদয় ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় নিষিদ্ধ ঘোষিত উগ্র জঙ্গিবাদী বই প্রচার ও নও যুবক তথা তরুণ প্রজন্মকে জঙ্গিবাদে উৎসাহিত করে আসছিল। তিনি হিযবুত তাহরীর বাংলাদেশ শাখার আমীরের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ রাখেন। আর অফলাইন ও অনলাইনের মাধ্যমে হিযবুত তাহরীর গ্রুপ লিডারদের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ রেখে বিভিন্ন মসজিদে রাষ্ট্র ও সরকার বিরোধী লিফলেট বিতরণ ও দাওয়াতি কাজ করতেন।
গ্রেপ্তারকৃত নাফিজ সালাম উদয় ঢাকার আদাবর থানার আব্দুস সালামের ছেলে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমরা