" /> বাংলার মানুষ নিজেদের সমস্যা নিজেরাই সমাধান করতে পারে : জয় – নাগরিক দৃষ্টি টেলিভিশন
শুক্রবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:৫৮ অপরাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদ
নারী জাগরণের মধ্যেই সকলের সম্মিলিত অংশগ্রহণে সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে হবে : প্রধানমন্ত্রী বিদেশি কূটনীতিকদের বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে অযাচিত মন্তব্য না করার আহ্বান : সেতুমন্ত্রী গুজরাট বিজেপি ১৮২ আসনের ১৫৬টিতে জয়ী হয়ে রেকর্ড রিমান্ড শেষে কারাগারে টুকুসহ সাত জন জামিন নামঞ্জুর, কারাগারে ফখরুল-আব্বাস ফখরুল-আব্বাসকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ সর্দিতে নাক বন্ধ হলে আরাম পেতে যা করবেন আর্জেন্টিনা-নেদারল্যান্ডসের আগের লড়াইগুলো ম্যাচ পরিসংখ্যান ব্রাজিল ও ক্রোয়েশিয়ার ম্যাচ পরিসংখ্যান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের রেসিডেন্সি কোর্সের ভর্তি পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে অনুষ্ঠিত ডিবি কার্যালয়ে বাসা থেকে পাঠানো নাস্তা খেয়েছেন ফখরুল

বাংলার মানুষ নিজেদের সমস্যা নিজেরাই সমাধান করতে পারে : জয়

6th youth award

প্রধানমন্ত্রীর তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা এবং সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই) চেয়ারপার্সন সজীব ওয়াজেদ জয় বলেছেন, আমার বিশ্বাস ছিল বাংলার মানুষ নিজেদের সমস্যা নিজেরাই সমাধান করতে পারে।
শনিবার (১২ নভেম্বর) সাভারে শেখ হাসিনা জাতীয় যুব উন্নয়ন ইনস্টিটিউটে আয়োজিত জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ডের ষষ্ঠ আসরের পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে  কথাগুলো বলেন তিনি।
6th youth award e1668344929409
সারাদেশ থেকে আবেদন করা দেশ গঠনে এগিয়ে আসা তরুণদের ৬০০টিরও বেশি সংগঠন থেকে যাচাই বাছাই শেষে শীর্ষ ১০ তরুণ সংগঠনের হাতে ওঠে জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড। এ বছর ৫টি ক্যাটাগরির প্রতিটিতে দুটি করে ১০টি সংগঠনকে এ পুরস্কার দেয়া হয়। এ ছাড়াও দেশের জন্য বিশেষ অবদান রাখায় দুইজন পেয়েছেন ‘লাইফ টাইম’ বা আজীবন সম্মাননা অ্যাওয়ার্ড। এই অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সিআরআই ট্রাস্টি নসরুল হামিদ বিপু।
অনুষ্ঠানে সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, আজকে যারা পুরস্কৃত হয়েছে শুধু তারাই না যারা আমাদের ফাইনালিস্ট এবং এই যে ৬০০ টি সংগঠন যারা যোগদান করেছে৷ আপনারা সকলেই আজকে বিজয়ী। আপনারা দেশের জন্য এবং দেশের মানুষের জন্য যেভাবে সেবা করছেন এটা আমাদের সকল নাগরিক ও বিশ্বের প্রতি উদাহরণ। আপনাদের মতো তরুণ তরুণীরা নিজের চিন্তাধারায় এবং প্রচেষ্টায় কারো কাছে হাত না পেতে নিজের মতো করে অল্প বা বেশি যেই পরিসরেই হোক কাজ শুরু করেছেন এটাই আমাদের চেতনা।
তিনি আরও বলেন, আমার এই বিশ্বাসটি ছিলো যে বাংলাদেশের মানুষ, আমরা নিজেদের সমস্যা নিজেরাই সমাধান করতে পারি। সারা বিশ্বেই এখন সংকট চলছে, যুদ্ধ চলছে। আমরা ২ বছর আগেই কোভিড মোকাবেলা করলাম। কোভিড যেতে না যেতেই যুদ্ধ, সন্ত্রাস এসবের জন্য অর্থনৈতিক চাপ বাড়ছে। এসবের খবর শুনে অনেকেই ভয়ে ভয়ে থাকে যে এ সমস্যা আমাদের দেশ কিভাবে মোকাবেলা করবে! আপনারাই (তরুণরা) সেই সমস্যা সমাধানের উদাহরণ।
সমস্যার কোনোদিন শেষ থাকে না মন্তব্য করে তিনি বলেন, এই যে ১৪/১৫ বছর যে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায়, আমরা কি কি সমস্যা দেখেছি। প্রথমেই ছিলো বিদ্যুতের সমস্যা। এত মানুষকে কিভাবে খাওয়ানো হবে। অর্থনীতি কিভাবে আগানো যায়। সেগুলো আমরা করে দেখিয়েছি। তারপর আসলো কোভিড। কোভিড নিয়ে সবাই ভয়ে ও আতঙ্কে ছিলো। সারাবিশ্ব আতঙ্কে ছিলো। বাংলাদেশ নিজেদের মতো করে নিজেদের প্রচেষ্টায় বিশ্বের অনেক ধনী দেশের চেয়েও ভালোভাবে কোভিড মোকাবেলা করেছে।
প্রতিবার ইয়াং বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড প্রদানের সময় গর্ব বোধ করেন জানিয়ে সজীব ওয়াজেদ বলেন, এতগুলো সংগঠন (দেশ গঠনে) এগিয়ে আসে, আবেদন করে। গত ৭ বছর ধরেই আমরা দেখছি। প্রথমে যখন শুরু করি তখন ২০০র মতো সংগঠন ছিলো। প্রত্যেক বছর এর সংখ্যা বাড়ছে। এখন সারাদেশে প্রায় সাড়ে ৩ লাখ সদস্য রয়েছে ইয়াং বাংলার। এ সময় ইয়াং বাংলার আয়োজকদের ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি নিয়মিত এই অ্যাওয়ার্ড প্রদান জারি থাকার কথা পুনঃব্যক্ত করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.


ফেসবুকে আমরা