শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ১১:৪০ পূর্বাহ্ন
নিউজ বোর্ড :
কাবুলে মসজিদে মাগরিবের নামাজে বিস্ফোরণ, নিহত ২০ মস্কো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে যুবরাজ যাচ্ছেন ‘আদিম’ নিয়ে ইরানি পরিচালকের মামলার বিষয়ে জানি না: অনন্ত জলিল বাড়ছে হলের সংখ্যা,‘পরাণ’ মুক্তির ৩৯ দিনেও ‘অ্যাডভেঞ্চার অব সুন্দরবন’পরীমনি অভিনীত সরকারী অনুদানে সিনেমার মুক্তি পেছাল ভক্তরা যা করলেন শাকিব খানের জন্য কিছুটা স্বস্তি ডলারের বাজারে নাসা নতুন রকেট পাঠাচ্ছে চাঁদে বিশ্ববাজারে বেশিরভাগ পণ্যের দাম কমেছে ভরিতে ২২৭৫ টাকা কমছে স্বর্ণের দাম বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন চীনে ,তীব্র তাপপ্রবাহের মধ্যে লাখ লাখ মানুষ চীন সেনা পাঠাচ্ছে রাশিয়ায় মাত্র ১৫ শতাংশ,৩২০০ কোটি টাকায় টিভি স্বত্ব,বিক্রি করল বার্সেলোনা চমকে যাবেন,মেসি-রোনালদোর আয় জানলে,শুধু ইনস্টাগ্রাম থেকে জাসদের দাবি দোষীদের শাস্তি – স্বাধীনতাবিরোধী, দেশবিরোধী অপশক্তি, জঙ্গিগোষ্ঠী লাভবান না হয় সে বিবেচনার অনুরোধ : তথ্যমন্ত্রী ৩ মাসে দেশ পরিবর্তন,খালেদা জিয়ার জামিন হলে: জাফরুল্লাহ চা শ্রমিকদের মজুরি দেন,হুমকি নয় : টিআইবি আজ সিরিজ বোমা হামলার ১৭ বছর গুতেরেস ও এরদোয়ান ইউক্রেন যাচ্ছেন
নোটিশ বোর্ড :
জরুরি ঘোষণাঃ আমাদের আই টি বিভাগের কারিগরি উন্নয়ন এর কাজ চলছে! এতে প্রচারে বিঘ্ন ঘটতে পারে সাময়িক অসুবিধার জন্য দুঃখিত। #Ndtvbdnewsroom “জরুরী আবশ্যক”বেসরকারী অনলাইন টেলিভিশন চ্যানেল ” নাগরিক দৃষ্টি টেলিভিশন ” এনডিটিভি তে এ উপস্থাপক উপস্থাপিকা, ভয়েস আটির্স,অফিস সহকারী পুরুষ – মহিলা এসএসসি,এইচএসসি,স্নাতক,ছবি সহ আবেদন করতে হবে এই মেইলে hr@ndtvbd.com * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * নাগরিক সাংবাদিকতার পথে ,আপনি হতে পারেন নাগরিক সাংবাদিক, দেরি না করে এখনি পাঠিয়ে দিন আপনার ছবি সহ বায়োডাটা এই মেইলে hr@ndtvbd.com, আপনারা যদি কোন সংবাদ বা নিউজ ক্লিপ পাঠাতে চান তাহলে এই মেইলে পাঠাতে পারেন news@ndtvbd.com– Head Of News–* পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার * পরিক্ষামুলক সস্প্রচার

সুজন সম্পাদকের বিরুদ্ধে কোটি টাকা অনিয়মের অভিযোগ আছে: সিইসি

index3 18

সাবেক প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) এ টি এম শামসুল হুদা এবং নাগরিক সংগঠন সুজন-এর সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদারের বিভিন্ন সময়ে করা সমালোচনার কড়া জবাব দিয়েছেন বর্তমান সিইসি কে এম নূরুল হুদা। 

বৃহস্পতিবার নির্বাচন ভবনে রিপোর্টার্স ফোরাম ফর ইলেকশন অ্যান্ড ডেমোক্রেসির (আরএফইডি) সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়ে ওই দুজনের সমালোচনার জবাব দেন সিইসি। পাঁচ সদস্যের বর্তমান কমিশনের মেয়াদ শেষ হচ্ছে মধ্য ফেব্রুয়ারিতে। এ উপলক্ষ্যে এই মতবিনিময়ের আয়োজন করা হয়।

বর্তমান কমিশনকে ‘অদক্ষ’ আখ্যা দিয়ে ভোটে ‘অনিয়ম’ এবং নির্বাচন ব্যবস্থা ‘ভেঙে দেওয়া’সহ বিভিন্ন অভিযোগ করে আসছেন সুজনের সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদার।

ওই প্রসঙ্গ টেনে কে এম নূরুল হুদা বলেন, “বদিউল আলম মজুমদার এই কমিশন নিয়ে অনেক কথা বলে ফেলেন। এটার একটা ইতিহাস আছে। এখানে যোগদানের পর থেকে আমার সঙ্গে দেখা করতে চান।… তাকে নিয়ে অনেক ঝামেলা, অনিয়ম। এক কোটি টাকার আর্থিক অনিয়ম, কাজ না করে টাকা দেওয়া, নির্বাচন কমিশনে সভায় অনিয়ম নিয়ে সিদ্ধান্ত আছে।”

পূর্ব পরিচিত হলেও সুজনের বিরুদ্ধে আর্থিক অনিয়মসহ নানা ধরনের অভিযোগ প্রমাণ হওয়ায় ওই সংগঠনকে (সুজন) কোনো কাজে সম্পৃক্ত করেনি বর্তমান ইসি। বর্তমান ইসির সময়ে কাজ না পাওয়ায় ‘ক্ষুব্ধ হয়ে’ বদিউল আলম এখন কমিশনের সমালোচনা করছেন বলেও মন্তব্য করেন নূরুল হুদা।

তিনি বলেন, “দুই বছর আমার পেছনে ঘুর ঘুর করছেন। একা একা এসেছেন। খবর পেয়েছি প্রায় ১ কোটি টাকা আর্থিক অনিয়মের অভিযোগ ও অন্যান্য অভিযোগ রয়েছে। … এ লোকের সঙ্গে আলাদাভাবে আলোচনা করা যায় না, বিশ্বাস করা যায় না। উনি নির্বাচন সংশ্লিষ্ট কোনো বিশেষজ্ঞ…, কাজ নেই। সংবাদ সম্মেলন করার বিশেষজ্ঞ উনি। আমাদের তো তার দরকার নেই।”

সম্প্রতি এটিএম শামসুল হুদা বর্তমান ইসির সমালোচনা করে বলেছিলেন, সদিচ্ছা থাকলে বর্তমান নির্বাচন কমিশন ভালো নির্বাচন করতে পারত। তাদের ‘পারফর্মেন্স সন্তোষজনক নয়’। তারা বিভিন্ন বিষয়ে ‘বিতর্ক সৃষ্টি করেছেন’।

ওই প্রসঙ্গ টেনে কে এম নূরুল হুদা বলেন, “কয়েকদিন আগে এটিএম শামসুল হুদা সাহেব সবক দিলেন। তিনি বললেন, আমাদের অনেক কাজ করার কথা ছিল, করতে পারিনি, বিতর্ক সৃষ্টি করেছি। একজন সিইসি হিসেবে তার কথা আমার কাছে গ্রহণযোগ্য মনে হয়নি। “ইসি ইজ ওয়ান অব দ্য মোস্ট কমপ্লেক্স ইন্সটিটিউশন। এর মধ্যে একজন বাহবা নিয়ে যাবেন বা স্বীকৃতি নিয়ে যেতে পারে- এটা সম্ভব না। তার পক্ষে সম্ভব; আমিত্ব বোধ থেকে বলতে পারেন।”

২০০৭-০৮ সালে জরুরি অবস্থার সময়ে সিইসির দায়িত্ব পালন করা এটিএম শামসুল হুদা ‘বিরাজনীতির পরিবেশে সাংবিধানিক ব্যত্যয়’ ঘটিয়েছেন বলেও মন্তব্য করেন কে এম নূরুল হুদা।

তিনি বলেন, “ইসির দায়িত্ব ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন করা। তিনি নির্বাচন করেছেন ৬৯০ দিন পরে। এ সাংবিধানিক ব্যত্যয় ঘটানোর অধিকার তাকে কে দিয়েছে? তখন গণতান্ত্রিক সরকার ছিল না, সেনা সমর্থিত সরকার ছিল; ইমারজেন্সির কারণে এটা করেছে। গণতান্ত্রিক সরকারের সময়ে করা সম্ভব না।”

নবম সংসদ নির্বাচনের আগে নির্বাচন পর্যবেক্ষক সংস্থা সুশাসনের জন্য নাগরিককে (সুজন) প্রার্থীদের হলফনামা প্রচারের কাজ দেওয়ার সমালোচনা করে কে এম নূরুল হুদা বলেন, “বিরাজনীতির পরিবেশের মধ্যে তিনি (এটিএম শামসুল হুদা) এটা করেছেন। তিনি বদিউল আলম মজুমদারের কীভাবে নিয়োগ দিয়েছেন? লাখ লাখ টাকা কীভাবে দিলেন? এ রকম অনেক কিছু করা যায়। ভেবেচিন্তে কাজ করতে হবে। সব কিছুর ঊর্ধ্বে এখান থেকে গেছে, এটা সম্ভব না, ক্যানট বি। অনেক সমালোচনার আছে।” বর্তমান ইসি সব কিছু স্বচ্ছভাবে মোকাবেলা করতে পারে বলেও দাবি করেন সিইসি।

নির্বাচন কমিশনের মতো ‘জটিল’ সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানে কারো ‘বাহবা পাওয়ার সুযোগ নেই’ বলেও মনে করেন সিইসি কে এম নূরুল হুদা। ২০১৭-২০২২ সময়ে ইসির দায়িত্ব পালনে কোনো রাজনৈতিক চাপ ছিল না বলেও দাবি করেন তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.


ফেসবুকে আমরা